Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, মঙ্গলবার, ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০ , ১৩ আশ্বিন ১৪২৭

গড় রেটিং: 2.9/5 (16 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০৯-২৪-২০১৩

ইউনানী-হারবাল ও কবিরাজি দাওয়াখানা পুরোটাই প্রতারণা, হতাশাগ্রস্ত ও সহজ সরল মানুষ প্রতারিত


	ইউনানী-হারবাল ও কবিরাজি দাওয়াখানা পুরোটাই প্রতারণা, হতাশাগ্রস্ত ও সহজ সরল মানুষ প্রতারিত
কক্সবাজার, ২৫ সেপ্টেম্বর- সহ জেলা প্রত্যন্তজনপদে ইউনানী, হারবাল ও কবিরাজি দাওয়াখানায় কথিত চিকিৎসার নামে চলছে চরম প্রতারণা । এসব দাওয়াখানায় চিকিৎসা নিয়ে রোগ থেকে পরিত্রাণ পাওয়া তো দুরের কথা উল্টো হাজার মানুষ শারীরিক ক্ষতির শিকার হচ্ছেন। পুরো জেলায় এধরনের হারবাল চিকিৎসার নামে প্রতারণা করছে কয়েক‘শ ব্যক্তি ও অর্ধশত প্রতিষ্ঠান। অনেকে ওষুধ প্রশাসনের অনুমতি না নিয়ে চিকিৎসা কাজ চালাচ্ছেন। অবৈধভাবে গড়ে ওঠা চিকিৎসালয়ের সংখ্যা কত? ড্রাগ লাইসেন্স ছাড়া কতগুলো প্রতিষ্ঠান এ ধরনের ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছেন ? এসব বিষয়ে কোন পরিসংখ্যান নেই ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তর বা আইন প্রয়োগকারী সংস্থাগুলোর কাছে। এর পরেও সব রোগের চিকিৎসার গ্যারান্টি সহকারে স্থানীয় পত্রিকায় বিজ্ঞাপন ছাপিয়ে, কুরুচিপূর্ণ প্রচারপত্র বিলি করে ও ক্যাবল টিভিতে বিজ্ঞাপন প্রচার করে শিকারে পরিণত করছে গ্রামীণ জনপদের এক শ্রেণীর হতাশাগ্রস্ত আর দিশেহারা সহজ সরল মানুষকে। হাতিয়ে নিচ্ছে প্রচুর অর্থ। এসব দেখার যেন কেউ নেই।
অনুসন্ধানে জানা গেছে, কক্সবাজার  শহরেই গড়ে উঠেছে অন্তত ২৫টির অধিক ইউনানী, হারবাল ও কবিরাজী দাওয়াখানা। পুরো জেলার প্রত্যন্ত জনপদে এর সংখ্যা অর্ধশতাধিক।
এই সব প্রতিষ্টানে চিকিৎসার অন্তরালে রোগীদের সঙ্গে চলছে চরম প্রতারণা। মূলত যৌন রোগ সারানোর নামে লাগামহীন বাণিজ্য চলছে। দেশের প্রচলিত আইনানুযায়ী ওষুধের যেকোনো ধরণের বিজ্ঞাপন প্রচার নিষিদ্ধ থাকলেও হারবাল, ইউনানী ও করিবাজী দাওয়াখানার চিকিৎসা কেন্দ্রগুলো রাস্তার ধারে, অলিগলিতে, বাসে, বৈদ্যুতি খুঁটিতে, স্কুল কলেজ গেইটে সহ বিভিন্ন দৃষ্টি আকৃষ্ট করা স্থানে অশীল বিজ্ঞাপনের প্রচারণা চালাচ্ছে। বিজ্ঞাপন ও লিফলেট পড়ে শিক্ষর্থীরা সহ পথচারী অনেকেই বিব্রত হচ্ছেন। স্থানীয় ক্যাবল টিভি অপারেটরদের চ্যানেলের মাধ্যমে এসব বিজ্ঞাপন ড্রয়িং রুমেও চলে যাচ্ছে।
যুগের শ্রেষ্ট আবিষ্কার শাহী জোয়ানী। যাহা সেবন ছাড়া উপলব্দি সম্ভব নয়। অতিশয় পুষ্টিকর বলকর, বীর্য়বান ও শুক্রবর্ধক যাহা সেবনে নিরানন্দ জীবনে আসে শান্তি । পুরুষ হয় সিংহ রূপী-রমনী হয়পতি ভক্তি। নিরানন্দ জীবনে অনাবিল সুখ যৌন, মোটা হওয়া, বিশেষ অঙ্গ বড় করা, সহ বিভিন্ন রোরে চিকিৎসার কথা, বিফলে মুল্য ফেরৎ, এক ফাইলে যতেষ্ট  এক’শ পার্সেন্ট গ্যারান্টির কথা সহ আরো বিভিন্ন ধরনের লোভনীয় লিফলেট বিলি করে হারবাল, কবিরাজি চিকিৎসার নামে সমস্যাসঙ্কুল মানুষকে প্রতারণা করে চলেছে একদল প্রতারক। বিভিন্ন দৃষ্টি কাড়া শ্লোগান আর সব রোগের চিকিৎসার গ্যারান্টি সহকারে গ্রামীণ জনপদের এক শ্রেণীর হতাশাগ্রস্ত আর দিশেহারা সহজ সরল মানুষের কাছ থেকে হাতিয়ে নিচ্ছে প্রচুর অর্থ।  মূলত যৌন রোগ সারানোর নামেই চলেছে  লাগামহীন বাণিজ্য । তবে এর সংখ্যায় বেশীর ভাগ উঠতি তরুণ সমাজ আর মধ্য বয়সী নারী ও পুরুষ। কিছু ভগ্ন স্বাস্থ্যের অধিকারী কিছু পাতলা চিকন তরুণ-তরুণী স্থায়ী সুন্দর ও ভাঙ্গা গাল ভরাট করার জন্য ঔষুধ সেবন করে সাময়িক উপকৃত হলেও পরে নানা রোগে আক্রান্ত হচ্ছেন বলেও অনেকের অভিযোগ।
অনুসন্ধানে আরো জানা গেছে, এধরনের একটি প্রতিষ্টান দ্রব্য শক্তি হারবাল সেন্টার। মুরাদপুর চট্টগ্রামে অবস্থিত। কক্সবাজার শহর সহ জেলার বিভিন্ন স্থানেও শাখা খোলা হয়েছে। যুগের শ্রেষ্ট আবিষ্কার শাহী জোয়ানী। যাহা সেবন ছাড়া উপলব্দি সম্ভব নয়। অতিশয় পুষ্টিকর বলকর, বীর্যবান ও শুক্রবর্ধক যাহা সেবনে নিরানন্দ জীবনে আসে শান্তি । পুরুষ হয় সিংহ রূপী-রমনী হয়পতি ভক্তি। কোন পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া নেই। কঠিন রোগ নিমূলের নিশ্চয়তা দেয়া হয় এই প্রতিষ্টানে।
আমেরিকার জিংসেন বিক্রি করছে কক্সবাজার শহরের পানবাজার কক্সস মেডিকো নামের একটি ফার্মেসী। দাম্পত্য অক্ষমতা নিয়ে চিন্তিত। দাম্পত্য সুখের আমেরিকার জিনসেং এখন বাংলাদেশে, জিন্ডাও হেলথ সার্ভিস মিরপুর ঢাকার চিকিৎসা ও বিক্রয় কেন্দ্রের ওষুধ বিক্রি করা হচ্ছে এই প্রতিষ্টানে। আরেক প্রতারণার ঘাটি কস্তুরি দাওয়াখানা। নিরানন্দ জীবনে অনাবিল সুখ, কস্তুরী দাওয়াখানা । যৌন, মোটা হওয়া, বিশেষ অঙ্গ বড় করা, সহ বিভিন্ন রোরে চিকিৎসার কথা বলা হয়। অনন্ত যৌবনের বিস্ময় কর শক্তি শ্লোগান দিয়ে একশ পার্সেন্ট নিশ্চয়তা সহকারে নারী পুরুষের যে কোন গোপন রোগের চিকিৎসা করা হয়। কেরানী হাট সাতকানিয়া চট্টগ্রাম। কলকাতা করিবাজ ঘর, কেরানীহাট সাতকানিয়া চট্টগ্রাম। সুখনীড়ে মহাবীরের আগমন, স্বপ্ন নয় সত্যি, কল্পনা নয় বাস্তব, আসলে পুরুষাঙ্গ বড় করা সম্ভব সেক্স সুপার অয়েল সহ বিভিন্ন যৌন রোগের চিকিৎসার নামে চটকারি বিজ্ঞাপন ছাপাচ্ছে।  এসব চটকদারি বিজ্ঞাপনে ওষুধের মুল্য নির্ধারণ করা হয় ৫৫০ টাকা থেকে ১১‘শ টাকা পর্যন্ত । ভিপি ও পার্সেল যোগেও ওষুধ পাঠান রোগীর ঠিকানায়।
অনুসন্ধানে আরো জানা গেছে, এই  সব প্রতিষ্ঠান গুলোতে ডাক্তার দেখাতে কোন ভিজিট ফি নেয়া হয় না। তবে চিকিৎসকরা ব্যবস্থাপত্রে যেসব ওষুধের নাম লিখে দেন তা কিনতে হয় তাদের কাছ থেকে অথবা অনুমোদিত ফার্মেসি থেকেই।
সম্প্রতি এ প্রতিবেদক কবিরাজী হারবাল সেন্টার নামের একটি প্রতিষ্টানে গেলে ডাক্তারের একজন মহিলা সহকর্মী বলেন, কি সমস্যা নিয়ে এসেছেন? আমাকে বলুন। যৌন দুর্বলতার কথা বলতেই একটি হেলথ কার্ডে তিনি এ প্রতিবেদকের নাম-ঠিকানা, বয়স, ওজন ইত্যাদি লেখেন। কিছুণ পর পাঠানো হয় ডাক্তারের কাছে। হেলথ কার্ড দেখে কোন পরীা-নিরীা ছাড়াই ডাক্তার ১৫ দিনের জন্য ৪ ধরনের ওষুধ কেনার ব্যবস্থাপত্র দেন। ওষুধগুলো হলো- মা’জুন আরদে খোরমা, লিভার কেয়ার (দীনার), এনার্জি প্ল্যাস (নিশাত) এবং কস্তরী সুপার ট্যাবলেট। ব্যবস্থাপত্র নিয়ে অনুমোদিত ফার্মেসিতে গেলে সেখান থেকে বলা হয়, ওষুধগুলো কিনতে ২৭’শ টাকা লাগবে বলে জানান।
শুধু কক্সবাজার  শহর নয় জেলার প্রত্যন্ত জনপেদে ইউনানী, হারবাল ও কবিরাজি চিকিৎসার নামে প্রতারণা করছে শতাধিক ব্যক্তি ও অর্ধশত প্রতিষ্ঠান। এ প্রতিষ্ঠানে যৌন, চর্ম রোগের পাশাপাশি হাঁপানী, বাতব্যথা, ডায়াবেটিকস, লিভার সমস্যা, মহিলাদের বিভিন্ন কঠিন ও গোপন রোগসহ ৩৯টি রোগের চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। রোগের অবস্থা বুঝে ৫০০ থেকে ২ হাজার টাকার বিনিময়ে চিকিৎসা দেন। বিভিন্ন হারবাল কোম্পানির ঔষধ বিক্রির সঙ্গে অনেকে এলোপ্যাথিক ওষুধও বিক্রি করে যাচ্ছে। এভাবে জেলা ব্যাপী নাম না জানা ব্যাঙের ছাতার মতো গজিয়ে উঠছে এসব হারবাল চিকিৎসা কেন্দ্র হাতুড়ে ডাক্তারদের চেম্বার। এদের চটকদারি বিজ্ঞাপনে প্রতারিত হচ্ছে গ্রামের সহজ সরল মানুষ। কিন্তু রহস্য জনক কারণে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপ এসব ভুয়া প্রতিষ্ঠান ও ডাক্তারের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা নিচ্ছেন না।
কক্সবাজার সিভিল সার্জন ডাঃ কাজল কান্তি পাল বলেন, অচিরেই এসব প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে তালিকা করা হচ্ছে। এর পর অভিযান চালিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

কক্সবাজার

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে