Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, মঙ্গলবার, ১১ আগস্ট, ২০২০ , ২৭ শ্রাবণ ১৪২৭

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০৭-০৫-২০২০

নজরুল ইসলাম খানের ওপর ক্ষোভ ঝাড়লেন ২০ দলের নেতারা

নজরুল ইসলাম খানের ওপর ক্ষোভ ঝাড়লেন ২০ দলের নেতারা

ঢাকা, ০৫ জুলাই- বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের সমন্বয়কারী নজরুল ইসলাম খানের ওপর জোটের নেতারা ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন বলে দাবি করেছেন জোটের এক শীর্ষ নেতা। রোববার (৫ জুলাই) বেলা ১১টায় জোটের শরিক নেতাদের ভার্চুয়াল বৈঠক শুরু হয়। দুই ঘণ্টার বেশি সময় ধরে এ বৈঠক চলে।

বৈঠক শেষে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক জোটের এক শীর্ষ নেতা বলেন, ‘আজকের বৈঠকে নজরুল ইসলাম খানের ওপর ক্ষোভের বহিঃপ্রকাশ করা হয়েছে। করোনার মধ্যে তিনিও বিচলিত হয়ে এক নামসর্বস্ব দলের জোট নেতাকে দায়িত্ব দিয়েছিলেন। যিনি বাজেট প্রতিক্রিয়ার বিবৃতিতে জোটের কয়েকজন শীর্ষ নেতার নাম বাদ দেন এবং পরে গণমাধ্যমে পাঠানো হয়েছিল, বিষয়টি নিয়ে আজ বৈঠকে আমাদের এক নেতা তীব্র প্রতিবাদ জানিয়ে জোটের ঐক্য ধরে রাখার স্বার্থে নজরুল ইসলামের প্রতি আহ্বান জানান। জোটের ঐক্যের স্বার্থে নজরুল ইসলাম খানকে এ বিষয়ে বোঝানো হয়েছে, তার মগজ স্যানিটাইজ করা হয়েছে। আশা করা যায়, তিনি ভবিষ্যতে আর ওই ধরনের বিভ্রান্তিতে আক্রান্ত হবেন না।’

শরিক নেতারা যে বিষয়টি নিয়ে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন বৈঠকে সেটি নিয়ে নজরুল ইসলাম খান কী বললেন? জবাবে জোটের এই নেতা বলেন, ‘একদম নীরবই ছিলেন। তিনি কিছুই বলেননি।’

এছাড়া জোটের প্রধান বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার সঙ্গে দেখা করার বিষয়ে শরিক নেতাদের পক্ষ থেকে জাতীয় দলের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট সৈয়দ এহসানুল হুদা বলেন, ‘সবাই না হলেও, ড.অলি আহমদসহ সিনিয়র কয়েকজনের সঙ্গে ম্যাডামের দেখা হওয়া দরকার। খালেদা জিয়ার মুক্তির পর নাগরিক ঐক্যের মাহমুদুর রহমান মান্না দেখা করতে পারলেও ২০ দলের শীর্ষ নেতারা খালেদা জিয়ার সঙ্গে দেখা করতে না পারার বিষয়েও নজরুল ইসলাম খানের প্রতি বিরাগভাজন হন শরিক নেতারা।’

সূত্র জানায়, শাহাদাৎ হোসেন সেলিম থাকায় বৈঠকে ঢুকেই বের হয়ে যান লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টির একাংশের সভাপতি অলি আহমদ।

বৈঠকের বিষয়ে জানতে চাইলে শাহাদৎ হোসেন সেলিম বলেন, ‘গতানুগতিক বৈঠক হয়েছে আমাদের। বাজেট ও করোনা পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা হয়েছে। এই বাজেট অবাস্তবায়নযোগ্য। বাজেটে স্বাস্থ্য শিক্ষার উন্নতির কিছু নেই। করোনায় যারা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে সেসব শ্রেণি-পেশার মানুষের জন্য বাজেটে কিছু নেই। অন্য রাষ্ট্রকে সুবিধা দিতে পাটকল বন্ধ করা হয়েছে। এসব সার্বিক বিষয় নিয়ে আলোচনা হয়েছে।’

জাতীয় দলের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট সৈয়দ এহসানুল হুদা বলেন, ‘বাজেট ও করোনা পরিস্থিতিতে সার্বিক বিষয় নিয়ে আমাদের আলোচনা হয়েছে। আগামীকাল দুপুর ১২টায় আমাদের সমন্বয়কারী জননেতা নজরুল ইসলাম খান এ বিষয়ে গণমাধ্যমে ব্রিফ করবেন।’

সূত্র: জাগোনিউজ

আর/০৮:১৪/৫ জুলাই

জাতীয়

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে