Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২০ , ১৫ আশ্বিন ১৪২৭

গড় রেটিং: 2.8/5 (4 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০৮-০৩-২০২০

শিমুলিয়ায় আরেকটি ফেরিঘাট নির্মাণের নির্দেশ

শিমুলিয়ায় আরেকটি ফেরিঘাট নির্মাণের নির্দেশ

ঢাকা, ০৩ আগস্ট- যাত্রীদের দুর্ভোগ কমাতে ও যানজট নিরসনে শিমুলিয়ায় আরেকটি ফেরিঘাট নির্মাণের জন্য বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ-পরিবহন কর্তৃপক্ষকে (বিআইডব্লিউটিএ) নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন নৌ-পরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী।  

খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেন, ঈদের দিন বিকেলে আমি শিমুলিয়া ঘাট এলাকা পরিদর্শন করি এবং সেদিন বিকেল থেকে পণ্যবাহী যান নিয়ে ফেরি চলাচলের নির্দেশ দেই।

পরবর্তীতে যাত্রীবাহী বাসও ফেরিতে চলাচল করছে। তেমন সমস্যা হচ্ছে না। মোটরসাইকেলের চাপ অনেক বেশি। শিমুলিয়ায় অন্য তিনটি ঘাট দিয়ে ফেরি চলাচল করছে। এজন্য আরও একটি ফেরিঘাট নির্মাণের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

সোমবার (৩ আগস্ট) সচিবালেয় নৌ-পরিবহন মন্ত্রণালয়ের অফিস কক্ষে ঈদ পরবর্তি সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এসব কথা বলেন।  

আরও পড়ুন: চলাচলে নিয়ন্ত্রণ ৩১ আগস্ট পর্যন্ত, মাস্ক না পরলে ব্যবস্থা

নৌ-পরিবহন প্রতিমন্ত্রী বলেন, পদ্মার তীব্র স্রোত ও ভাঙনের কারণে মুন্সিগঞ্জের শিমুলিয়ার তিন নম্বর ফেরিঘাটটি ভেঙে যাওয়ায় ৩১ জুলাই রাত থেকে কিছু সময়ের জন্য শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ী রুটে ফেরি চলাচল বন্ধ ছিল। এতে যাত্রীদের অনেক দুর্ভোগ পোহাতে হয়েছে। এই দুর্ভোগ কমাতে শিমুলিয়ায় আরেকটি ফেরিঘাট নির্মাণের জন্য বিআইডব্লিউটিএকে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, করোনা ও বন্যা পরিস্থিতির মধ্যেও বাংলাদেশের মানুষ ঈদ উদযাপন করেছে, কোরবানি দিয়েছে। মানুষের মধ্যে ঈদের আনন্দের কমতি দেখিনি। মানুষ সবকিছুর মধ্যে আনন্দ ভাগ করে নিয়েছে। করোনা ও বন্যা মোকাবিলা করে আমরা যাতে এগিয়ে যেতে পারি তার জন্য মহান সৃষ্টিকর্তা আল্লাহর কাছে প্রার্থনা করেছি।

খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আমরা অর্থনীতির চালিকা শক্তি ধরে রাখতে পেরেছি। ঈদের পর সোমবার প্রথম দিন থেকেই সচিবালয়ের কর্মকাণ্ড স্বাভাবিক হয়ে আসছে। অর্থনীতির চলমান প্রবাহ ধরে রেখে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ে তুলতে সক্ষম হবো।  

প্রতিমন্ত্রী বলেন, মানিকগঞ্জ থেকে পাটুরিয়াঘাটে যাওয়ার রাস্তাটি দুইলেন বিশিষ্ট। রাস্তাটি সরু থাকায় যানবাহনের অতিরিক্ত চাপের ফলে ঈদের আগে সেখানে কিউ (ভিড়) তৈরি হয়েছিল। শিমুলিয়া থেকে দু’টি রো-রো ফেরি পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া ঘাটে আনার ফলে পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া ফেরিরুটে জট তৈরি হয়নি। ফেরি স্বল্পতা বা স্রোতের জন্য তেমন জট সৃষ্টি হচ্ছে না। এখন কিছুটা স্বাভাবিক হয়ে আসছে। ফেরি দ্রুত চলাচল করতে পারলে রাস্তার চাপ বা জট অনেকটা কমে যাবে।

সূত্র: বাংলানিউজ
এম এন  / ০৩ আগস্ট

জাতীয়

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে